বুধবার, ২৭ মে, ২০২০

এসএসসি পরীক্ষার্থীকে তুলে নিয়ে ধর্ষণ

নেত্রকোনার পূর্বধলায় এক এসএসসি পরীক্ষার্থীকে (১৮)  জোর করে  তুলে নিয়ে ধর্ষণের করেছে। এ ঘটনায় গতকাল মঙ্গলবার রাতে মেয়েটির বাবা বাদী হয়ে শিমুল আলমগীর (২৪) নামে এক ভ্যানচালককে আসামি করে মামলা করেছেন। শিমুল পূর্বধলার বুধি এলাকার বাসিন্দা।

মামলার পর পুলিশ অভিযুক্ত শিমুলকে শ্যামগঞ্জ এলাকা থেকে গ্রেফতার ও পরীক্ষার্থীকে উদ্ধার করে। পরে তাকে নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

স্থানীয় বাসিন্দা, পুলিশ ও মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে, পূর্বধলা সদর ইউনিয়নের ওই পরীক্ষার্থী এবার উপজেলা সদরের একটি মাধ্যমিক বিদ্যালয় থেকে উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে চলতি এসএসসি পরীক্ষায় একটি বিষয়ে অংশগ্রহণ করে।

বখাটে শিমুল আলমগীর দীর্ঘদিন ধরে তাকে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে আসছিল। এতে সে রাজি না হওয়ায় তিনি তাকে বিয়ের প্রস্তাব দেন। পরে তার পরিবারকে বিষয়টি জানিয়ে দিলে শিমুল তার ওপর ক্ষিপ্ত হন।

আরও পড়ুনঃ ধর্ষণ শেষে হত্যাই করল স্কুলছাত্রীকে

গত শুক্রবার সন্ধ্যার দিকে উপজেলা সদরের মঙ্গলবাড়িয়া এলাকা থেকে শিমুল তার সহযোগীদের নিয়ে ওই পরীক্ষার্থীকে জোর করে ভয়ভীতি দেখিয়ে একটি মোটরসাইকেলে করে তুলে নিয়ে যান।

পরে ডেউটুকোন এলাকা থেকে তার পিকআপ ভ্যানে করে রাজধানীর উত্তরা এলাকায় একটি হোটেলে ধর্ষণ করেন। পরদিন নরসিংদী শহরের একটি বাসায় নিয়ে জোর করে পরীক্ষার্থীর টিপসই নিয়ে বিয়ে করেন।

এ ঘটনায় গত মঙ্গলবার রাত আটটার দিকে ওই পরীক্ষার্থীর বাবা বাদী হয়ে পূর্বধলা থানায় মামলা করেন।

পূর্বধলা থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. তৌহীদুর রহমান বলেন, এ ঘটনায় পরীক্ষার্থীর বাবা বাদী হয়ে থানায় মামলা করেছেন। মামলার পর পর অভিযুক্ত ওই যুবককে গ্রেফতার করে বুধবার দুপুরের দিকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

0Shares

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *