করোনা আপডেটসারাদেশ

গাইবান্ধায় করোনা প্রতিরোধে ইউনিয়ন এবং পৌরসভা পর্যায়ে টিকাদান কর্মসূচীর শুরু

মো. আশরাফুল আলম, গাইবান্ধা প্রতিনিধি-

অবশেষে শুরু হলো ইউনিয়ন এবং পৌরসভা পর্য়ায়ে টিকাদান কর্মসূচি। মেয়র কাউন্সিলর, ইউপি চেয়ারম্যান,ইউপি সদস্য এবং টিকা প্রদান ব্যবস্থাপনা কমিটির ব্যাপক প্রচারনায় স্বল্প সময়েই বরাদ্দকৃত টিকা শেষ হয়ে যায়। ক্যাম্পেইন সফল হয়েছে বলে জানান জনপ্রতিনিধিগণ।

শনিবার (৭ আগাস্ট) পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী গাইবান্ধার সকল ইউনিয়ন এবং ৪টি পৌরসভায় সকাল ৯টার মধ্যেই কেন্দ্রে সিনোফার্ম এর ভিরোসেল টিকার সরঞ্জাম পৌছে যাওয়ায় নির্ধারিত সময়েই শুরু হয় টিকা প্রদান কার্য়ক্রম। তবে বৃষ্টির কারনে কোথাও কোথাও একটু দেরিতে শুরু হয়। দেরিতে শুরু হলেও মানুষের ব্যাপক উৎসাহের কারনে শান্তিপূর্ণভাবে শেষ হয় টিকা প্রদান।

আগের দিন শুক্রবার থাকায় সকল মসজিদে কাউন্সিলর এবং ইউপি চেয়ারম্যানগণ মসজিদে বার্তা দেয়ায় মানুষ সচেতন ভাবেই এই টিকা গ্রহনে উৎসাহিত হয়েছে বলে জানান গাইবান্ধা পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর শহীদ আহম্মেদ। তিনি আরও জানান- একটি ওয়ার্ড এর জন্য ২০০ টিকা অনেক কম পরিস্থিতি সামাল দিতে দ্রুতই বাকি জনগোষ্ঠীকে টিকার আওতায় আনা জরুরী। সরকারী নির্দেশনা অনুযায়ী যারা বেশি বয়স্ক আজ শুধু তাদেরকেই অগ্রাধিকার ভিত্তিতে টিকা প্রদান করা হয়েছে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার এবং বিভিন্ন পর্য়ায়ে সরকারী কর্মকর্তাগণ টিকা প্রদান ক্যাম্পেইন পরিদর্শন করেন। ইউনিয়ন এবং পৌরসভা পর্য়ায়ে টিকার ব্যাপক চাহিদা থাকলেও জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ সুত্রে জানা গেছে সরবরাহ কম থাকায় শুধু ৭ আগস্ট ক্যাম্পেইন করে পরবর্তী সরবরাহ সাপেক্ষে আগামী ১৪ আগস্ট থেকে  নিয়মিত ভাবে টিকা প্রদান করা হবে।  

অন্যদিকে আজ থেকে শুরু হয়েছে পূর্বের অ্যাস্ট্রোজেনেকার  কোভিশিল্ড টিকার ২য় ডোজ। জেলা সদর হাসপাতালের সিভিল সার্জন কার্য়ালয়ের সম্মেলন কক্ষে এই টিকা প্রদান করা হয়। তবে অনেকের মোবাইলে ক্ষুদেবার্তা না আসলেও টিকা গ্রহনের জন্য এসে বিভ্রান্তের  পরে যায়। পাশাপাশি দুটি কেন্দ্র একই চত্তরে হওয়ায় অনেকের মধ্যেই বিভ্রান্তের মধ্যে পরে যায়। স্বাস্থ্য সহকারী এবং স্বেচ্চাসেবকদের সহযোগিতায় বিষয়টি দ্রুতই নিস্পত্তি হয়। অ্যাস্ট্রেজেনেকার ২য় ডোজ টিকা প্রদান শুরু হওয়ায় জেলায় ২৪ হাজার ৪৮৯ জন ১ম ডোজ টিকা গ্রহণকারীর অপেক্ষা এবং উৎকন্ঠার অবসান হবে বলে জানা যায়।

এই জাতীয় আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button