ময়মনসিংহসারাদেশ

গাছে ঝুলে থাকা বৈদ্যুতিক তারে স্পৃষ্ট হয়ে শিশুর মৃত্যু

 হলি সিয়াম শ্রাবণ, গৌরীপুর (ময়মনসিংহ)

ময়মনসিংহের গৌরীপুরে রবিবার (১৮ জুলাই) দুপুর ২টায় ইয়াছিন মিয়া (৫) নামের এক শিশুর বাড়ির পাশের ঝুলে থাকা বিদ্যুৎ এর তারে মৃত্যু হয়েছে।নিহত শিশু উপজেলার বোকাইনগর ইউনিয়নের দাড়িয়াপুর গ্রামের হৃদয় মিয়ার ছেলে।

জানা গেছে, দাড়িয়াপুর সড়ক থেকে জামে মসজিদ পর্যন্ত বিদ্যুতের তার দুর্বল খুঁটি ও গাছের সাথে টানানো হয়েছে। বিগত ২ মাস পূর্বে মসজিদের পাশে একটি বিদ্যুতের তার ঝুলে পড়ে যায়। বিষয়টি স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ও স্থানীয়রা একাধিকবার আবাসিক প্রকৌশলী (বিদ্যুৎ) ও সহকারী প্রকৌশলীকে অবহিত করলেও তারা কোন কর্ণপাত করেনি।

ঘটনার দিন শিশু ইয়াছিন খেলতে গিয়ে ঝুলে থাকা তারে পড়ে যায়। এতে ঘটনাস্থালেই বিদ্যুৎতাড়িত হয়ে তার মৃত্যু হয়। প্রতিবেশি লিপি জানান, তিনি আনুমানিক দুপুর ২টায় শিশু ইয়াছিনকে ঝুলে থাকা বিদ্যুৎ এর তারের উপর পড়ে থাকতে দেখেন। এসময় তিনি চিৎকার করলে আশেপাশের লোকজন ছুটে আসে।নিহত শিশু ইয়াছিনের লাশ নিয়ে বিচারের দাবীতে উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর কাছে আসে গ্রামের শত শত মানুষ।স্থানীয় আঃ আজিজ এর ছেলে সোহেল মিয়া বলেন, জীবিত গাছের সাথে বিদ্যুৎ এর তার কখনো এমনভাবে বাঁধতে দেখিনি।নূরুল ইসলাম জানান, বিদ্যুৎ অফিসের গাফিলতিতে ইয়াছিনের মৃত্যু হয়েছে। এর দায় বিদ্যুৎ অফিসের নিতে হবে।

বোকাইনগর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ হাবিব উল্লাহ হাবিব জানান, ২ মাস পূর্বে বিদ্যুৎ এর তারটি গাছ থেকে ঝুলে পড়ে যায়। বিষয়টি তিনি মুঠোফোনে বিদ্যুৎ অফিসকে জানান ও দ্রুত ব্যবস্থা নেয়ার অনুরোধ করেন। কিন্তু দীর্ঘদিন অতিবাহিত হলেও বিদ্যুৎ অফিস কোন ব্যবস্থা নেয়নি। সে সময় লাইনটি মেরামত করলে ইয়াছিন এর মৃত্যু হতো না। এর দায় কি বিদ্যুৎ অফিস এড়াতে পারে?গৌরীপুর আবাসিক প্রকৌশলী (বিদ্যুৎ) মোঃ বিল্লাল হোসেন জানান, গৌরীপুরে গাছের সাথে অসংখ্য বিদ্যুৎ এর তার লাগানো আছে। বর্তমানে প্রকল্পের কাজ চলমান। ঈদের পর লাইনগুলো মেরামত করা হবে।গৌরীপুর থানার অফিসার ইনচার্জ খান আব্দুল হালিম সিদ্দিকী জানান, কোন অভিযোগ পায়নি। ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হচ্ছে।

এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার হাসান মারুফ জানান, ঘটনাটি উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হবে। বিদ্যুৎ অফিসের অবহেলা থাকলে তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এই জাতীয় আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button