গাজায় ৭ ত্রাণকর্মীকে হত্যা নিয়ে যা বললেন নেতানিয়াহু

Israel war on Gaza updates Aid workers killed amid man-made famine

ফিলিস্তিনের অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় বিমান হামলা চালিয়ে ৭  ত্রাণকর্মীকে হত্যা করেছে দখলদার ইসরাইল। নিহতদের মধ্যে অস্ট্রেলিয়া, পোল্যান্ড, যুক্তরাজ্য ও যুক্তরাষ্ট্র-কানাডার যৌথ নাগরিক রয়েছেন।

এই হত্যাকাণ্ডের পর মুখ খুলেছেন ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু। মঙ্গলবার তিনি দাবি করেছেন, তাদের সেনারা ওই ত্রাণকর্মীদের ওপর অনিচ্ছাকৃত হামলা চালিয়েছে। আর যুদ্ধক্ষেত্রে এ ধরনের ভুল হয়।

এক ভিডিও বার্তায় নেতানিয়াহু বলেন, দুর্ভাগ্যবশত গত দিনে একটি দুঃখজনক ঘটনা ঘটেছে। আমাদের বাহিনী অনিচ্ছাকৃতভাবে গাজা উপত্যকায় যোদ্ধা নয় এমন ব্যক্তিদের ক্ষতি করেছে।

তিনি বলছিলেন, যুদ্ধে এমনটি ঘটে। তবে আমরা এই ঘটনার একটি পুঙ্খানুপুঙ্খ তদন্ত নিয়ে সরকারের সঙ্গে যোগাযোগ করছি। এমন ঘটনার পুনরাবৃত্তি রোধে যা যা করা দরকার তার সবকিছু আমরা করব।

আরও পড়ুনঃ হামাসের বিরুদ্ধে অভিযানে ব্যর্থ হয়ে মানসিক সমস্যায় ভুগছে নেতানিয়াহু

অনাকাঙ্ক্ষিত এই ঘটনার জন্য ‘আন্তরিকভাবে দুঃখ’ প্রকাশ করেছে ইসরাইলের সামরিক বাহিনী। ‘একটি স্বাধীন, পেশাদার এবং বিশেষজ্ঞ সংস্থা’র মাধ্যমে এই ঘটনা তদন্ত করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে তারা।

ইসরাইলিদের হামলায় গাজায় যেসব ত্রাণকর্মী নিহত হয়েছেন তাদের সবাই ওয়ার্ল্ড সেন্ট্রাল কিচেনের (ডব্লিউসিকে) হয়ে কাজ করছিলেন। হামলার সময় তারা একটি গুদামে খাদ্যপণ্য রেখে বের হয়েছিলেন। তখন তাদের গাড়িবহর লক্ষ্য করে হামলা চালানো হয়।

ওয়ার্ল্ড সেন্ট্রাল কিচেনের গাড়ি বহরে সোমবারের হামলায় নিহত সাতজনের মধ্যে অস্ট্রেলিয়া, ব্রিটেন এবং পোল্যান্ডের নাগরিকের পাশাপাশি ফিলিস্তিনি এবং যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডার একজন দ্বৈত নাগরিক রয়েছেন।


কমেন্ট As:

কমেন্ট (0)