ঢাকাসারাদেশ

নরসিংদী রায়পুরার বাঁশগাড়ীতে দুই পক্ষের সংঘর্ষে আহত-২০

মোঃ মেজবাহ উদ্দিন ভূইয়া, নরসিংদী প্রতিনিধিঃ

নরসিংদীর রায়পুরায় আধিপত্য বিস্তার ও আসন্ন ইউপি নির্বাচনকে কেন্দ্র আওয়ামীলীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে অন্তত ২০ জন আহত হয়েছে। ২৫ অক্টোবর রোজ সোমবার সকাল থেকে বাঁশগাড়ী ইউনিয়নের নতুন বাজার এলাকায় দফায় দফায় ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ায় ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনতে এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, এলাকার আধিপত্য বিস্তার নিয়ে দূর্গম চরাঞ্চল বাঁশগাড়ী ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান আশরাফুল হক ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হাসান মিয়ার ছেলে জাকির গ্রুপের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিলো। সম্প্রতি বর্তমান চেয়ারম্যান আশরাফুল হক পুনরায় দলীয় মনোনয়ন পাওয়ায় বিরোধ চরম আকার ধারণ করে। এরই অংশ হিসেবে সকালে দুপক্ষের লোকজন সংঘর্ষে লিপ্ত হয়। দুপুর পর্যন্ত কয়েক দফায় ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনায় দুপক্ষের অন্তত ২০ জন আহত হয়েছে। এর মধ্যে ১২জন নরসিংদী সদর হাসপাতালসহ অন্যরা বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছে।

আহতরা হলেন, মৃত রতন মিয়ার ছেলে রফিকুল ইসলাম (২০), মৃত ফুল মিয়ার ছেলে মোহাম্মদ আলী (২৪), মৃত রবিউল আউয়ালের ছেলে ইকবাল হোসেন (২৫), সুরুজ খানের ছেলে রুবেল খান (২২), আবদুল আলীর ছেলে স্বপন আলী (৩২), নুরু মিয়ার ছেলে বিল্লাল হোসেন (১৯), সায়েম মিয়ার ছেলে আজিজুল ইসলাম (১৬), আশরাফ উদ্দিনের ছেলে দেলোয়ার হোসেন (২৪), আনোয়ার হোসেনের ছেলে আসিফ হোসেন (১৮), গাজীউর রহমানের ছেলে সেলিম রহমান (৩২), মৃত আবদুর রহিমের ছেলে আবু সাইদ (৩৩), জমির হোসেনের ছেলে আমজাদ হোসেন (২২)। নরসিংদী সদর হাসপাতালের জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক মাহমুদুর বাসার জানান, রায়পুরার বাঁশগাড়ি থেকে আহত অবস্থায় আসা ১২ জনকে আমরা চিকিৎসা দিয়েছি। প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে এরই মধ্যে তাদের বাড়িতে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

নরসিংদীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সাহেব আলী পাঠান জানান, ঘটনার খবর পেয়ে পুলিশ এলাকায় গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। দুপক্ষেরই বেশ কয়েকজন আহতের খবর পেয়েছি। তবে গুলিবিদ্ধ কিংবা আহতের পরিসংখ্যান আমাদের কাছে নেই। বর্তমানে এলাকার পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। অনাকাঙ্খিত পরিস্থিতি এড়াতে ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

এই জাতীয় আরো খবর

Back to top button