জাতীয়রংপুরসারাদেশ

প্রধানমন্ত্রীর দূরদর্শিতার কারণে দেশের মানুষ শান্তিতে আছে -হুইপ গিনি

রিপন মিয়া, ফুলছড়ি (গাইবান্ধা) প্রতিনিধিঃ

জাতীয় সংসদের হুইপ মাহাবুব আরা বেগম গিনি বলেছেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শিতার কারণে দেশের মানুষ আজ শান্তিতে আছে। প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণা অনুযায়ী গ্রাম আর শহরের মধ্যে কোন পার্থক্য থাকবে না। প্রধানমন্ত্রীর প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নের লক্ষ্যে প্রত্যেকটি গ্রামে ব্যাপক উন্নয়ন কাজ করা হচ্ছে। তাই বৈশ্বিক সংকটকালীন দেশের উন্নয়ন কর্মকান্ড থেমে নেই।

অগ্রাধিকার ভিত্তিতে গুরুত্বপূর্ণ পল্লী অবকাঠামো উন্নয়ন প্রকল্পের (আইআরআইডিপি-৩) আওতায় বুধবার (২২ সেপ্টেম্বর) গাইবান্ধা সদর উপজেলার বোয়ালী ইউপি অফিস হতে ফুলছড়ি উপজেলা পরিষদ রাস্তার পূর্ব বোয়ালীতে এলজিইডির বাস্তবায়নে এক কোটি ৯৯ লাখ টাকা ব্যয়ে ২২ মিটার ব্রিজ নির্মাণ কাজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনকালে তিনি উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন এলজিইডি গাইবান্ধার নির্বাহী প্রকৌশলী আহসান কবীর, সিনিয়র সহকারি প্রকৌশলী আবুল কালাম আজাদ মোল্লা, ফুলছড়ি উপজেলা প্রকৌশলী ইমতিয়াজ আহমেদ ইমু, গাইবান্ধা জেলা আওয়ামী লীগের শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক সম্পাদক নওশের আলম, ঠিকাদার রাশেদ খান মেনন, বোয়ালী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মতিন, আওয়ামী লীগ নেতা আব্দুল কাদের মাষ্টার, এলাকার সুধীজন সহ আওয়ামী লীগ ও সহযোগি সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

হুইপ মাহাবুব আরা বেগম গিনি আরও বলেন, এলাকার মানুষের চাহিদার কথা বিবেচনা করে জাতীয় সংসদ সদস্যের বিশেষ বরাদ্দের ২০ কোটি টাকা থেকে অগ্রাধিকার প্রকল্পের মাধ্যমে বোয়ালী ব্রিজটি নির্মাণ করা হচ্ছে। ইতিমধ্যে জনগুরুত্বপূর্ণ গাইবান্ধা-ফুলছড়ি এ সড়কটি সংস্কার কাজ হাতে নেয়া হয়েছে। তিনি বলেন, গাইবান্ধা সদর উপজেলার ৩০৯টি কাঁচা রাস্তা আইডিভুক্ত করে পাকাকরণের প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। একটি রাস্তাও কাঁচা থাকবে না।

উল্লেখ্য, ফুলছড়ি থেকে বোয়ালী হয়ে গাইবান্ধা জেলা শহরে প্রবেশের এ রাস্তাটির পূর্ব বোয়ালী এলাকার ব্রিজটি ২০১৬ সালের বন্যায় ভেঙে যায়। তখন থেকে এপথে যাতায়াতকারীদের চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। ব্রিজটি নির্মিত হলে ফুলছড়ি উপজেলা ও সদর উপজেলার দুই লক্ষাধিক মানুষের যোগাযোগের পথ সহজ হবে।

বিস্তারিত

এই জাতীয় আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button